“ঈদ স্পেশাল” রান্নার রেসিপি হতে পারে আপনার পরিজনের বাড়তি প্রাপ্তির উৎস

111

সুপ্রভাত বগুড়া (রান্না-বান্না): প্রিয় পাঠক/পাঠিকা, বর্তমানে করোনার প্রভাবে ঈদের আনন্দে কিছুটা প্রতিকূলতা সুষ্টি হলেও আপনি কিন্তু স্বাস্বচ্ছন্দে পরিবারের মাঝেই কাটাতে পারেন সুন্দর এবটি মুহুর্ত্ব। আর লকডাউনের এই ঈদে পরিজনদের খাবারে বাড়তিেউপভোগ্যতা যুক্ত করতে থাকছে মজার মজার রান্নার রেসিপি।

ঈদের বিশেষ রান্নায় চমকে দিতে পারেন আপনার পিয়জনদের। তাহলে আসুন আজকে জেনে নেয়া যাক এই ঈদে স্পেশাল রান্নার কয়েকটি রেসিপি একত্রে। যা আপনার পরিবারকে বাড়তি আনন্দে ভরিয়ে তুলবে।

লায়ালি লুবনান   উপকরণ-লাচ্ছা সেমাই ১/৪কাপ, সুজি ১/৪কাপ, কনডেন্স মিল্ক ১টিন, ডিম ১টি, পানি ২কাপ, গোলাপ জল ১চা চামচ, মধু ৩টেবিল চামচ, পেস্তা বাদাম কুচি ৩টেবিল চামচ, কাজু বাদাম কুচি ৩টেবিল চামচ, চেরি ৪/৫টি, বাটার ক্রিম(ডিমের সাদা ১টি, আইসিং সুগার পোনে ১কাপ, বাটার ২০০গ্রাম,বরফ ১কিউব,কর্নফ্লাওয়ার ১টেবিল চামচ, এসেন্স ১ফোটা সব দিয়ে ক্রিম বানানো) ও লবণ ১চিমটি।

প্রস্তুত প্রণালী-একটি পাত্রে ডিম কনডেন্স মিল্ক ও পানি মিশিয়ে সেমাই ও সুজি দিয়ে মিশিয়ে জ্বাল দিতে হবে। ঘন হযে আসলে গোলাপ জল দিয়ে নামিয়ে পরিবেশন পাত্রে ঢেলে একটু ঠাণ্ডা করে নিতে হবে। এবার বাটার ক্রিম দিয়ে ওপরে বাদাম ও চেরি ছিটিয়ে মধু দিয়ে সেট করে ফ্রিজে রেখে ঠাণ্ডা ঠাণ্ডা পরিবেশন করুন।  

দম বিরিয়ানি উপকরণ
মাংস মাখাতে -গরু অথবা খাসির মাংশ ১কেজি,টকদই ১/২কাপ,কাশ্মীরি মরিচের গুঁড়া ২চা চামচ, পেঁয়াজ বাটা ২টেবিল চামচ,অদা বাটা ১টেবিল চামচ,রসুন বাটা ১টেবিল চামচ,জিরা বাটা ১চা চামচ,গরম মশলা বাটা ১চা চামচ,পোস্তদানা বাটা ১চা চামচ,ঘি ২টেবিল চামচ ও লবণ স্বাদমত।

বাসমতি চাল ১/২কেজি,বড় এলাচ ১টি,ছোট এলাচ ৩টি,দারচিনি টুকরা,তেজপাতা ২টি, কিশমিশ ১টেবিল চামচ, কাজুবাদাম ১০/১২টি, কাচামরিচ ৬/৭টি, জাফরান ভেজানো দুধ ১কাপ, জাফরান ১চিমটি, গোলাপজল ১টেবিল চামচ, পেঁয়াজ বেরেস্তা ১/৪কাপ,ঘি ৩টেবিল চামচ ও লবণ স্বাদমত।

প্রস্তুত প্রণালী-মাংস মাখানোর সমস্ত উপকরণ একসাথে মেখে ২/৩ঘন্টা রেখে দিন। চাল ১৫মিনিট পানিতে ভিজিয়ে রাখুন। হাড়িতে পরিমাণমত পানি বসিয়ে তাতে লবণ ও আস্ত গরম মশলা দিয়ে পানি ফুটিয়ে তাতে চাল দিন। চাল আধা সেদ্ধ হলে নামিয়ে পানি ঝরিয়ে নিন।

এবার যেই পাত্রে বিরিয়ানি দমে বসাবেন সেই পাত্রে মেখে রাখা মাংস বিছিয়ে বেরেস্তা, বাদাম, কিশমিশ, আধাসেদ্ধ চাল, জাফরান, বাদাম, গোলাপজল, কাঁচা মরিচ ও জাফরান ভেজানো দুধ দিয়ে ফয়েল পেপার অথবা ময়দার রুটি বানিয়ে হাড়ির মুখ চারপাশ দিয়ে মুরে বন্ধ করে দিন,যাতে করে কোনো ভাপ বের হতে না পারে।

এবার গরম লোহার তাওয়ার ওপর হাড়ি বসিয়ে মৃদু আচে দেড় ঘণ্টা রেখে দিন। এবার ফয়েল পেপার খুলে পছন্দমত সাজিয়ে পরিবেশন করুন।

খাসির চাপ উপকরণ-খাসির মাংস ৫০০গ্রাম, একটু বড় পিস করে কেটে হালকা করে ছেঁচে নিন। পেঁয়াজ বাটা ২টেবিল চামচ, আদা বাটা ১টেবিল চামচ, রসুন বাটা ১টেবিল,গরম মশলা গুড়া ১চা চামচ, জয়ফল, জৈয়ত্রী বাটা ১/৪চা চামচ, জিরা গুড়া ১চা চামচ, হলুদ গুঁড়া ১/২চা চামচ,মরিচ গুঁড়া ১চা চামচ, গোলমরিচ বাটা ১চা চামচ, কাচামরিচ ৩/৪টি, ধনেপাতা কুচি ২টেবিল চামচ, সরিষার তেল ৫টেবিল চামচ ও লবণ স্বাদমত।

প্রস্তুত প্রণালী-মাংসের সাথে সমস্ত উপকরণ মেখে ২/৩ঘন্টা মেখে রাখুন। এবার কড়াইতে চাপ ঢেলে কষিয়ে পরিমাণমত পানি দিয়ে ঢেকে রান্না করুন। সেদ্ধ হলে চাপ ভাজা ভাজা করে কাচামরিচ ও ধনেপাতা দিয়ে নামিয়ে পছন্দমত সাজিয়ে পরিবেশন করুন।