ছোট ব্যবসায়ীসহ গণমাধ্যমকে সহজ শর্তে ঋণের প্রস্তাব এফবিসিসিআইয়ের

122

সুপ্রভাত বগুড়া (ব্যবসা-বাণিজ্য): কোনো রকম জটিলতা ছাড়া বিভিন্ন মিডিয়া, সংবাদপত্র, টিভি, ট্রাক, কার্গো, লঞ্চ ইত্যাদির ক্ষেত্রে এবং ব্যাকওয়ার্ড রপ্তানির ক্ষেত্রে শ্রমিক-কর্মচারীদের বেতনের ব্যাংক তালিকার ভিত্তিতে ঋণ দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন বাংলাদেশ শিল্প ও বণিক সমিতি ফেডারেশনের (এফবিসিসিআই) সভাপতি শেখ ফজলে ফাহিম।

গতকাল সোমবার (৪ মে) এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।  বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্দেশনা অনুযায়ী কোনও ব্যাংক বা আর্থিক প্রতিষ্ঠান ঋণ/বিনিয়োগ দেওয়ার ক্ষেত্রে ক্ষতিগ্রস্ত ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানকে যথাযথ সহযোগিতা না করলে তা এফবিসিসিআইকে অবগত করার আহ্বান জানানো হয়।

এদিকে বাংলাদেশ ব্যাংক কর্তৃক সব ধরনের ঋণ বা বিনিয়োগের ওপর ১ এপ্রিল থেকে ৩১ মে পর্যন্ত সময়ে আরোপিত সুদ আদায় না করার নির্দেশনা, ব্যবসায়ীরা বিশেষভাবে উপকৃত হবে বলে মনে করে এফবিসিসিআই।

গত ৫ এপ্রিল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা করোনাভাইরাসের কারণে ক্ষতিগ্রস্ত সিএমএসএমই খাতের উদ্যোক্তাদের সক্ষমতা অক্ষুণ্ণ রাখা এবং শিল্প কারখানায় জনবলকে কাজে বহাল রাখার প্রয়োজনে ব্যাংকিং ব্যবস্থার মাধ্যমে স্বল্প সুদে চলতি মূলধন ঋণ/বিনিয়োগ সুবিধা প্রবর্তণের জন্য ২০ হাজার কোটি টাকার আর্থিক সহায়তা প্যাকেজ ঘোষণা করেন।

এই ঘোষণার প্রেক্ষিতে সিএমএসএমই খাতের উদ্যোক্তাদের ঋণ/বিনিয়োগ প্রদান প্রক্রিয়া যাতে সহজ ও সাবলীল হয় সে লক্ষ্যে বাংলাদেশ ব্যাংকের কাছে প্রস্তাবনা পেশ করেন এফবিসিসিআই সভাপতি শেখ ফজলে ফাহিম। তিনি সকল গণমাধ্যমের জন্য সহজ স্বর্তে ঋণ প্রদানের বিষয়টির ওপরও গুরুত্বারোপ করেন।