টানা ১০ দিন উপসর্গহীন থাকলে তাকে করোনামুক্ত ধরে নেয়া হবে : স্বাস্থ্য অধিদপ্তর

23
টানা ১০ দিন উপসর্গহীন থাকলে তাকে করোনামুক্ত ধরে নেয়া হবে : স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। প্রতিকী-ছবি

সুপ্রভাত বগুড়া (স্বাস্থ্য কণিকা): করোনা আক্রান্ত ব্যক্তি হাসপাতালে চিকিৎসা নেয়ার পর ছাড়পত্র নিতে আর পরীক্ষার দরকার নেই। টানা ৩ দিন উপসর্গ না থাকলেই বাড়ি ফিরতে পারবেন তিনি। তবে বাসায় থাকতে হবে ১৪ দিনের আইসোলেশনে।

হাসপাতালের চাপ কমানো ও কিট সাশ্রয়ে এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। দেশে দিনে গড়ে করোনা শনাক্ত হচ্ছে সাড়ে তিন হাজারের বেশি মানুষের। এর মধ্যে সাত থেকে আটশ জন ভর্তি হন হাসপাতালে। আর দিনে সুস্থ হন দেড় হাজারের বেশি মানুষ।

সংক্রমণ শনাক্তের পর দুটি টেস্টে নেগেটিভ এলে করোনামুক্ত বলা হচ্ছিলো আক্রান্তকে। তবে পরীক্ষায় দীর্ঘসূত্রতার কারণে নেগেটিভ রিপোর্ট নিয়ে হাসপাতাল ছাড়া এবং কাজে যোগ দেয়ার ক্ষেত্রে বিড়ম্বনায় পড়েছেন অনেকে।

সে কারণে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সিদ্ধান্ত, পর পর তিন দিন ওষুধ না খেয়েও জ্বর-শ্বাসকষ্ট বা অন্য কোনো উপসর্গ না থাকলে হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র পাবেন সেই ব্যক্তি। টানা ১০ দিন উপসর্গহীন থাকলে তাকে করোনামুক্ত ধরে নেয়া হবে।

এতে রোগী ভোগান্তি কমবে বলে মনে করছে অধিদপ্তর। করোনা নেগেটিভ রিপোর্ট ছাড়া কর্মীদের কাজে যোগ দিতে দিচ্ছে না অনেক প্রতিষ্ঠান। তাদের উদ্দেশে অধিদপ্তর জানায়, এখন থেকে হাসপাতালের ছাড়পত্র বা প্রত্যয়ন দেয়া হলেই কাজে যোগ দেয়া যাবে।

তবে জটিল রোগীদের ক্ষেত্রে চিকিৎসক সিদ্ধান্ত দেবেন বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। বিশেষজ্ঞরা জানান, মানবদেহে এই ভাইরাস থাকে ১০ দিন।

উপসর্গ না থাকলে তিন দিন পর ওই ব্যক্তি হাসপাতাল ছাড়লে, অন্যরা সংক্রমিত করার সুযোগ নেই। তবে ১৪ দিনের আইসোলেশনে থাকতেই হবে।