ঠাকুরগাঁওয়ে গোপনাঙ্গ চেপে ধরে ধর্ষণের হাত থেকে রেহাই পেলেন গৃহবধূ !

470
ঠাকুরগাঁওয়ে গোপনাঙ্গ চেপে ধরে ধর্ষণের হাত থেকে রেহাই পেলেন গৃহবধূ ! প্রতিকী-ছবি

সুপ্রভাত বগুড়া (আলমগীর ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি): জোরপূর্বক ভূট্টা ক্ষেতে নিয়ে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার আউলিয়াপুর মাটিগাড়া সেনপাড়া গ্রামের ললিত সেনের (৩৫) বিরুদ্ধে।

এসময় গৃহবধূ কৌশলে ধর্ষনচেষ্টাকারির গোপনাঙ্গ চেপে ধরে চিৎকার চেঁচামেচি করলে ছেড়ে দিয়ে পালিয়ে যায় ধর্ষণ চেষ্টাকারি।  এদিকে ঘটনার পর থেকে পলাতক রয়েছে ধর্ষণ চেষ্টাকারি ললিত।

ধর্ষণের হাত থেকে উদ্ধার পাওয়া নারী অভিযোগ করে বলেন, সোমবার (১ জুন) দুপুরে আমি বাড়ির পাশে বাদাম ক্ষেত দেখতে যাই। এ সময় ভূট্টা ক্ষেতে আগে থেকে ওৎ পেতে থাকা মাটিগাড়া সেনপাড়া গ্রামের জয়প্রসাদ চন্দ্র সেন (দ্বন্দী)’র ছেলে ললিত সেন এসে আমার মুখ চেপে ধরে ভূট্টা ক্ষেতে নিয়ে যায়।

আমাকে ধর্ষণের চেষ্টা করে। অনেক ধস্তাধস্তি করে ছুটতে না পেরে তার গোপনাঙ্গ চেপে ধরি, এ সময় সে ছেড়ে দিলে আমি চিৎকার করি। পরে আমার স্বামী, দেবর ও এলাকাবাসি এসে আমাকে উদ্ধার করে।

তবে আমার চিৎকার-চেঁচামেচির সময় পালিয়ে যায় ললিত। স্থানীয়রা অনেকেই জানান, ললিত সেন একজন খারাপ প্রকৃতির মানুষ। সে ইতিপূবে এলাকায় আরও অনেক ঘটনা ঘটিয়েছে বলে জানান তারা।

ঘটনা ধামাচাপা দিতে সাবেক এক ইউপি সদস্য জোর তদবির চালাচ্ছেন বলে জানায় স্থানীয়রা। ওই ইউপি সদস্যের সাথে কথা বললে তিনি জানান, স্থানীয়ভাবে মিমাংসার জন্য ২৪ ঘন্টা সময় নিয়েছিলাম।

কিন্তু ছেলে না থাকায় তা সম্ভব হয়নি। তিনি আরও বলেন, বিষয়টি বর্তমান ইউপি সদস্য গৌরাঙ্গ রায় দেখছেন। এ ব্যাপারে গৌরাঙ্গ রায়ের সাথে কথা বললে তিনি জানান, ধর্ষিতার পরিবার আমার কাছে এসেছিল।

আমি তাদের আইনের আশ্রয় নিতে বলেছি।সদর থানার ওসি তানভিরুল ইসলাম জানান, ঘটনাটি শুনেছি। অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।