ঠাকুরগাঁওয়ে ৫৫ বছর বয়সী বৃদ্ধ’র বিরুদ্ধে ৮ বছরের শিশুকে শ্লীলতাহানির অভিযোগ !

53
ঠাকুরগাঁওয়ে ৫৫ বছর বয়সী বৃদ্ধ’র বিরুদ্ধে ৮ বছরের শিশুকে শ্লীলতাহানির অভিযোগ ! ছবি-আলমীর হোসেন

সুপ্রভাত বগুড়া (আলমগীর হোসেন): ঠাকুরগাঁওয়ে আম খাওয়ানোর প্রলোভন দেখিয়ে আট বছরের এক শিশুকে শ্লীলতাহানির অভিযোগ উঠেছে একই এলাকার ৫৫ বছর বয়সী এক বৃদ্ধ’র বিরুদ্ধে।

এ ঘটনার পরপরই লোকজন জানাজানি হলে পালিয়ে যায় সে অপরাধী। অপরদিকে এ ঘটনায় শিশুটির বাবা বাদী হয়ে সদর থানায় মামলা দায়ের করলে পুলিশ গতকাল মঙ্গলবার রাতেই শ্লীলতাহানিকারির দুই ছেলেকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় ধরে নিয়ে আসে।

চাঞ্চল্যকর এ ঘটনাটি ঘটেছে ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার খামার ভোপলা গ্রামে। এজাহার সুত্রে জানা যায়, গত সোমবার (১৫ জুন) দুপুরে শিশুটি টিভি দেখে তার ফুফুর বাসা থেকে ফেরার পথে একই এলাকার মো. আব্দুল হাই (৫৫) শিশুটিকে আম খাওয়ানোর কথা বলে নিজ বাড়িতে নিয়ে যায়।

সেখানে তাকে বিবস্ত্র করে শ্লীলতাহানি করলে শিশুটি চিৎকার দেয়। এসময় পাশে থাকা এক মহিলা জানালা দিয়ে উকি দিয়ে দেখতে পায় শিশুটি ও আব্দুল হাই দুজনেই বিবস্ত্র। এসময় সেই মহিলা শিশুটির নানীসহ তার পরিবারকে বিষয়টি জানালে তারা গিয়ে শিশুটিকে উদ্ধার করে ঠাকুরগাও আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন।

তবে এসময় পালিয়ে যায় শ্লীলতাহানিকারি আব্দুল হাই। পরে মেয়েটির বাবা বাদী হয়ে ১৬ জুন ঠাকুরগাঁও সদর থানায় শ্লীলতাহানির অভিযোগে একটি মামলা দায়ের করেন।এদিকে মামলার প্রেক্ষিতে গতকাল রাতে আসামী ধরতে গেলে আসামীকে না পেয়ে তার দুই ছেলে মানিক ও রমজানকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ধরে নিয়ে আসে পুলিশ। 

আজ বুধবার (১৭ জুন) দুপুরে আট বছরের শিশুকে শ্লীলতাহানির অভিযোগে মামলা দায়েরের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) তানভিরুল ইসলাম।

তিনি বলেন, অভিযোগ পেয়ে রাতেই আসামী ধরতে অভিযানে যায় পুলিশ, তবে আসামীকে না পেয়ে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তার দুই ছেলেকে থানায় ধরে নিয়ে আসা হয়েছে। আসামীকে ধরতে পুলিশ কাজ করছে বলেও জানান তিনি।