আগামী ২৬ জুন থেকে করোনার টেস্ট শুরু করছে আইসিডিডিআর,বি

21

সুপ্রভাত বগুড়া (জাতীয়): আন্তর্জাতিক উদারাময় গবেষণা কেন্দ্র, বাংলাদেশ (আইসিডিডিআর,বি) করোনার (কোভিড–১৯) সন্দেহভাজন রোগীদের টেস্ট শুরু করছে। রাজধানীর মহাখালীতে আইসিডিডিআর,বির ডায়াগনস্টিক সেন্টারে আগামী শুক্রবার (২৬ জুন) থেকে এ টেস্ট শুরু হচ্ছে।

আজ বুধবার প্রতিষ্ঠানটির এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়। প্রাথমিক পর্যায়ে, টেস্টের জন্য রোগীদের http://covid19test.icddrb.org ওয়েবসাইট ভিজিট করে নিবন্ধন ফরম পূরণের মাধ্যমে অ্যাপয়েন্টমেন্ট নিশ্চিত করা যাবে। টেস্টের ফি ডেবিট/ক্রেডিট কার্ড অথবা অনলাইন ব্যাঙ্কিং/মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে জমা দেওয়া যাবে।

এই ওয়েব অ্যাপ্লিকেশনটি আজ বুধবার সন্ধ্যা ছয়টা থেকে নিবন্ধনের জন্য উন্মুক্ত হয়েছে। প্রতি টেস্টের খরচ সর্বসাকুল্যে ৩,৫০০ টাকা (তিন হাজার পাঁচশ টাকা)। টেস্টের জন্য ব্যক্তির গলা এবং নাকের গভীর থেকে শ্লেষ্মা সংগ্রহ করা হবে।

প্রতিদিন সকাল ৭টা থেকে রাত ১২টা পর্যন্ত নমুনা সংগ্রহ করা হবে এবং পরবর্তী ২৪ থেকে ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে রিপোর্ট প্রদান করা হবে।

আইসিডিডিআর,বি-র ল্যাবরেটরি সায়েন্সেস অ্যান্ড সার্ভিসেস ডিভিশনের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক দীনেশ মন্ডল বলেন, ‘আমাদের রোগীদের এবং কর্মীদের নিরাপত্তা আমাদের কাছে সবচেয়ে অগ্রগণ্য বিষয় এবং তাই কোভিড-১৯ রোগীদেরকে উন্নত মানের সেবা দেওয়ার জন্য আমরা আমাদের ডায়াগনস্টিক সেন্টারটিকে পুনঃসংস্কার করেছি।

প্রাথমিক পর্যায়ে আমরা অনলাইন রেজিস্ট্রেশনের মাধ্যমে টেস্টের প্রক্রিয়া চালু করলেও পরবর্তী পর্যায়ে আমরা এটিকে সমাজের সর্বস্তরের মানুষের জন্য আরও সহজতর প্রক্রিয়ায় রূপান্তরিত করব।

আমাদের অত্যন্ত দক্ষ ও নিষ্ঠাবান বিজ্ঞানী ও চিকিৎসক এবং অত্যাধুনিক ল্যাবরেটরিগুলো এখন থেকে রোগীদেরকে উচ্চমানসম্পন্ন রোগনির্ণয় সেবা দিতে সক্ষম হবে, যার ওপর তাঁরা সব সময়ই আস্থা রেখে এসেছেন।’

রোগীর সঙ্গে কেবল একজন ব্যক্তি টেস্টের জন্য নির্ধারিত স্থানে যেতে পারবেন। তাঁদের উভয়কে অবশ্যই মুখে মাস্ক পরতে হবে সরকারের স্বাস্থ্যবিধি-সংক্রান্ত নির্দেশনাসমূহ যথাযথভাবে মেনে চলতে হবে।

বাংলাদেশ সরকারের স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের অধীনস্থ স্বাস্থ্য অধিদপ্তর আইসিডিডিআর,বি ডায়াগনস্টিক সেন্টারকে আরটি-পিসিআর প্রক্রিয়ায় কোভিড-১৯ টেস্ট করার অনুমোদন দিয়েছে।

নমুনা সংগ্রহের স্থান: আইসিডিডিআর,বি ডায়াগনস্টিক সেন্টার, ৬৮ শহীদ তাজউদ্দীন আহমেদ সরণি, মহাখালী, ঢাকা। সূত্র: প্রথম আলো