নওগাঁর রাণীনগরে দলীয় অফিসে হামলার ঘটনায় পাল্টা পাল্টি মামলা

103
সুপ্রভাত বগুড়া (এমরান মাহমুদ প্রত্যয়, নওগাঁ,জেলা প্রতিনিধি): নওগাঁর রাণীনগরের একডালা ইউনিয়নের চয়েনের মোড় নামকস্থানে আওয়ামীলীগ দলীয় অফিসে হামলা চালিয়ে মারপিট,প্রধানমন্ত্রী ও বঙ্গবন্ধুর ছবি ভাংচুরের ঘটনায় পাল্টা-পাল্টি মামলা দায়ের করা হয়েছে।
এঘটনায় স্থানীয় ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি আবুল বারেক, ইউপি মেম্বার আজিজার রহমানসসহ উভয় মামলার ১০ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।গ্রেফতারকৃতদের মঙ্গলবার সকালে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।জানাগেছে, গত রবিবার সকাল অনুমান ১১টায় একডালা ইউনিয়নের উপর তালিমপুর গ্রামের শাহাদজুলের ছেলে সুজন এবং ময়নুলের ছেলে রুবেলের মধ্যে ইউনিয়নের চয়েনের মোড় এলাকার তালিমপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে কথা কাটা-কাটি হয়।
এই বিষয়টি নিয়ে চয়েনের মোড় নামক বাজারে আওয়ামীলীগ দলীয় অফিসে রাত অনুমান আটটার সময় সমাধানের জন্য উভয় পক্ষ বসে। এসময় আজিজার রহমানের নেতৃত্বে হামলা চালিয়ে অফিসের আসবাবপত্র ,প্রধানমন্ত্রী এবং বঙ্গবন্ধুর ছবি ভাংচুর ও অবমাননা করে। এঘটনায় সোমবার রাতে উক্ত ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সদস্য উপর তালিমপুর গ্রামের জাহের আলীর ছেলে হোসেন আলী বাদী হয়ে ইউপি মেম্বার আজিজার রহমানসহ এজাহারনামীয় ১৬ জন এবং আরো ১০/১৫জনকে অজ্ঞাতনামা আসামী করে থানায় মামলা দায়ের করেন।
এদিকে একই রাতে একডালা ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি আব্দুর বারেকসহ কয়েকজন মেম্বার আজিজার রহমানের পথরোধ করে মারপিট করার অভিযোগে আজিজার রহমানের ভাতিজা রেজাউল ইসলাম বাদী হয়ে আব্দুল বারেকসহ এজাহারনামীয় ১০ জন এবং অজ্ঞাতনামা আরো ১০/১৫ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেন।
উভয় মামলার প্রেক্ষিতে ওই রাতেই অভিযান চালিয়ে ঘাটাগন গ্রামের আমজাদ হোসেনের ছেলে ইউনিয়ন ছাত্রলীগ সভাপতি আব্দুল বারেক (২৫), উপর তালিমপুর গ্রামের আজিজার রহমান মেম্বার (৬১), একই গ্রামের নাদিম হোসেন(২৪), জাহিদ হাসান(২২),জাহিদ হাসান বুলুন (২০) দৌলত হোসেন (৪৮),রাব্বি হাসান (২০),সুজন (২০),মানিক (২৫) এবং আব্দুল ওহাব ওরফে সারোয়ার (৩৮) কে গ্রেফতার করে।
গ্রেফতারকৃতদের মঙ্গলবার সকালে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।রাণীনগর থানার ওসি মো: জহুরুল হক বলেন,উভয় পক্ষের ১০ জনকে গ্রেফতার করে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। এছাড়া পলাতক আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। মামলা দু’টি সুষ্ঠু তদন্ত করা হচ্ছে।