নন্দীগ্রামে স্ত্রী-শ্বাশুড়ীর পরকীয়ায় বাঁধা দেওয়ায় জামাই রক্তাক্ত !

43
নন্দীগ্রামে স্ত্রী-শ্বাশুড়ীর পরকীয়ায় বাঁধা দেওয়ায় জামাই রক্তাক্ত !

সুপ্রভাত বগুড়া (নন্দীগ্রাম বগুড়া প্রতিনিধি): বগুড়ার নন্দীগ্রামে ১৭ ই আগস্ট আনুমানিক পৌরসভার ২ নং ওয়ার্ডের গুন্দইল গ্রামে স্ত্রী-শ্বাশুড়ীর পরকীয়ায় বাঁধা দেওয়ায় স্ত্রী-শ্বাশুড়ী ও পরকীয়া প্রেমিক মিলে ঘর জামাই শ্রী বিকাশ (৩৫) কে লোহার রড দিয়ে আঘাত করে মাথা ফাটিয়ে রক্তাক্ত করেছে।

প্রাপ্ত তথ্যে জানা গেছে, বিকাশের গ্রামের বাড়ী বগুড়া জেলার শিবগঞ্জ উপজেলার কাগইল গ্রামে। সে নন্দীগ্রাম পৌরসভার ২ নং ওয়ার্ড গুন্দইল গ্রামে বিবাহ করে ঘর জামাই থাকে। জামাই বিকাশের বর্নণা অনুযায়ী তার শ্বাশুড়ি ও স্ত্রী দীর্ঘদিন ধরে তাকে বাহিরে রেখে পরকীয়া প্রেমিকের সাথে অবৈধ সম্পর্ক স্থাপন করে আসছে,

এমতাবস্থায় আমি বাঁধা দিতে গেলে আমার স্ত্রী-শ্বাশুড়ি ও পরকীয়া প্রেমিক সিংড়া উপজেলার ক্ষীরপোতা গ্রামের আয়নাল মিলে আমাকে লোহার রড দিয়ে মাথায় আঘাত করে আমাকে রক্তাক্ত জখম করে।এ বিষয়ে পৌরসভার ২ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর কালিদাস সরকারের সাথে কথা বললে তিনি বলেন,

ঘটনাটি আমি জানতে পেরে জামাই বিকাশকে উদ্ধার করে প্রাথমিক চিকিৎসার ব্যবস্থা করি এবং স্ত্রী-শ্বাশুড়ী ও পরকীয়া প্রেমিক আয়নাল কে থানায় সোপর্দ করি।তিনি আরও বলেন, মাঝে মধ্যেই জামাই বিকাশকে  তার স্ত্রী ও শ্বাশুড়ি মারধর করতো। এ ব্যাপারে এসআই তৌহিদুর বলেন, নিয়মিত মামলায় তাদেরকে কোর্ট হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে