নারী নাকি পুরুষ ? কে বেশি লুকিয়ে রাখে মনের কষ্ট!

81
নারী নাকি পুরুষ ? কে বেশি লুকিয়ে রাখে মনের কষ্ট

জীবনে চলার পথে উত্থান-পতনে আমরা প্রায়ই মানসিক অবসাদে ভুগতে শুরু করি। কখনো অপ্রত্যাশিত কোনো ঘটনা আমাদের মনের কষ্টকে বাড়িয়ে তোলে দ্বিগুণ। মনের এই কষ্ট নারী ও পুরুষ উভয়ের মধ্যেই রয়েছে।

তবে এই জমে থাকা কষ্ট লুকিয়ে রাখার প্রবণতা নারীর চেয়ে পুরুষের মধ্যে বেশি লক্ষ করা যায়। আমেরিকার ভার্জিনিয়া ইউনিভার্সিটি এবং হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক এমনটাই দাবি করেছে। সমীক্ষার তথ্য বিশ্লেষণ করে গবেষকরা বলেন, মনের দুঃখ শেয়ার করার পরিবর্তে পুরুষরা নিজেদের মধ্যেই লুকিয়ে রাখতে চেষ্টা করেন।

আমেরিকার ভার্জিনিয়া ইউনিভার্সিটি এবং হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের যৌথ প্রচেষ্টায় এ সম্পর্কিত ১১টি সমীক্ষা করা হয়। এই সমীক্ষায় অংশগ্রহণ করা পুরুষদের বয়স ছিল ১৮ থেকে ৭৭ বছর। সমীক্ষায় অংশগ্রহণ করা বেশির ভাগ পুরুষদেরই দুঃখ নিয়ে খুব বেশি চিন্তা করতে দেখা যায়নি।

তারা তাদের মনের কষ্ট কারো সঙ্গে শেয়ার করতে চান না, বরং লুকিয়ে রাখতে চান। গবেষণায় গবেষকদের আরও যে বিষয়টি নজরে আসে তা হলো খুব কাছের মানুষের কাছেও তারা তাদের কষ্ট বা দুঃখের বিষয়টি গোপনই রেখে দেয়।

মনের কষ্ট ভুলতে পেশাগত জীবনে বেশি ডুবে যেতে পছন্দ করে তারা। পুরুষরা মনে করে কর্মব্যস্ততায় মনের কষ্ট ভুলে থাকা যাবে। তবে এই ধারণাই তাদের ক্ষেত্রবিশেষে মানসিক ধারণার পরিবর্তন ঘটায়।

মানসিক নানা সমস্যায় আক্রান্ত হওয়ার কারণে বিভিন্ন জটিল রোগেরও শিকার হন তারা। তাই  মনের কষ্ট চেপে না রেখে পুরুষদের তা শেয়ার করার পরামর্শ  দিচ্ছেন গবেষকরা।