পুতিন ইউক্রেনে দীর্ঘ যুদ্ধের প্রস্তুতি নিচ্ছেন : যুক্তরাষ্ট্রের গোয়েন্দা সংস্থা

42
পুতিন ইউক্রেনে দীর্ঘ যুদ্ধের প্রস্তুতি নিচ্ছেন যুক্তরাষ্ট্রের গোয়েন্দা সংস্থা

রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন ইউক্রেনে দীর্ঘ যুদ্ধের প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে দাবি করেছে যুক্তরাষ্ট্রের গোয়েন্দা সংস্থা। আগ্রাসনের লক্ষ্য পরিবর্তন করে সেদিকেই রাশিয়া এগোচ্ছে বলে সতর্ক করেছেন মার্কিন গোয়েন্দাপ্রধান এভ্রিল হাইনেস। এদিকে, ইউক্রেনের ইজিয়াম শহর থেকে ৪৪ বেসামরিক নাগরিকের মরদেহ উদ্ধার করেছে কর্তৃপক্ষ। এছাড়া দেশটির জন্য ৪০ বিলিয়ন ডলারের সহায়তার অনুমোদন দিয়েছে মার্কিন কংগ্রেস।

ইউক্রেনে দুই মাসের বেশি সময় ধরে চলা রুশ আগ্রাসনের মূল লক্ষ্য ছিল দেশটি থেকে নাৎসি প্রভাবমুক্ত করা। তবে ইউক্রেনের পূর্বাঞ্চলের শহর দনবাস নিয়ন্ত্রনে নেয়ার মাধ্যমে সামরিক অভিযানের লক্ষ্যে পরিবর্তন আনেন রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন।

এই পরিস্থিতিতে ইউক্রেনে দীর্ঘ সময় যুদ্ধ চালিয়ে যাওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে সতর্ক করেছে যুক্তরাষ্ট্রের গোয়েন্দা সংস্থা। মঙ্গলবার গোয়েন্দাপ্রধান এভ্রিল হাইনেস দেশটির কংগ্রেসে এ দাবি করেন। দনবাসে রাশিয়া জয় পেলেও সহজে এই হামলা শেষ হবে না বলে মন্তব্য করেন তিনি।

মার্কিন গোয়েন্দাপ্রধান এভ্রিল হাইনেস জানান, রাশিয়ার এখনো কৃষ্ণ সাগর সংলগ্ন অঞ্চল দখলের পরিকল্পনা রয়েছে। এমনটি হলে ক্রিমিয়া থেকে মলদোভার ট্রান্সনিসট্রিয়া অঞ্চলে পর্যন্ত একটি স্থল করিডর তৈরি হবে।
২০১৪ সালে ইউক্রেনের ক্রিমিয়া দখল করে নেয় রাশিয়া। মলদোভার ট্রান্সনিসট্রিয়া অঞ্চলেও মস্কোর নিয়ন্ত্রণ রয়েছে।

ইউক্রেনের জন্য ৪০ বিলিয়ন ডলারের সামরিক ও অর্থনৈতিক সহায়তার অনুমোদন দিয়েছে মার্কিন কংগ্রেস। এছাড়া ইউক্রেনে পুতিনের যুদ্ধ শুধু বর্বরতাই নয়, একইসাথে কাপুরুষতার প্রমাণ দেয় বলে মন্তব্য করেছেন হাউস স্পিকার ন্যান্সি পেলোসি। এদিকে, ইউক্রেনের ইজিয়াম শহরের একটি ধসে পড়া ভবন থেকে ৪৪ বেসামরিক নাগরিকের মরদেহ উদ্ধার হয়েছে।

কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে ভবনটি মূলত মার্চে ধসে পড়েছিল। রুশ হামলা থেকে বাঁচতেই ভবনটির বেসমেন্টে আশ্রয় নিয়েছিলেন বাসিন্দারা। ভবনটিতে হতাহতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করছেন উদ্ধারকর্মীরা। এপ্রিলের শুরুতে ইজিয়ামের দখল নেয় রুশবাহিনী।

ইউক্রেনের দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর ওডেসায় দুটি হোটেল ও একটি শপিং মলে রাশিয়া হাইপারসনিক মিসাইল হামলা চালিয়েছে বলে দাবি ইউক্রেন কর্তৃপক্ষের। দেশটির প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় দাবি করেছে দখলকৃত এলাকা থেকে চুরি করা শষ্য বিদেশে পাঠাচ্ছে মস্কো। এদিকে, ফ্রান্স ও মেক্সিকোর অনুরোধে ইউক্রেনের মানবিক পরিস্থিতি নিয়ে বৃহস্পতিবার জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদ বৈঠক বসবে।