বগুড়ার সারিয়াকান্দিতে জমিজমা নিয়ে বিরোধের জেরে পুকুর লুট!

বগুড়ার সারিয়াকান্দিতে জমিজমা নিয়ে বিরোধের জেরে পুকুর লুট। ছবি-দৌলত

সুপ্রভাত বগুড়া (দৌলত জামান): বগুড়ার সারিয়াকান্দিতে জমিজমা বিরোধের জেরে পুকুর লুট সারিয়াকান্দির নান্দিনার চরে জমিজমা নিয়ে বিরোধের জেরে মোঃ  শাহজামাল সরকারের পুকুরের পাড়ের তার কাটার বেড়া ভেঙ্গে ১ লক্ষ ২০ হাজার টাকার মাছ লুট অভিযোগ উঠেছে।

জানা যায়, মোঃ শাহজামাল সরকার (৪৫) পিতা মোঃ মোসলেম উদ্দিন সরকার, পূর্ব নান্দিনা, থানা- সারিয়াকান্দি, বগুড়া, বাদী হয়ে ১। মোঃ রফিকুল ইসলাম(৩৫) ২। মোঃ শফিকুল ইসলাম (২৫) উভয় এর পিতা মোঃ জহুরুল ইসলাম :(বাবরিওয়ালা) ৩। মোঃ জহুরুল(৬০) পিতা মৃত ইসহাক মন্ডল 

Pop Ads

৪। মোঃ উকিল সোনার (৩৫) ৫। মোঃ রিপন সোনার(৩০) উভয়ের  পিতা দুলাল সোনার,৬। দুদু সোনার পিতা-মৃত তইয়ব আলী সোনার সকলের সং-নান্দিনার চর, থানা-সারিয়াকান্দি, জেলা-বগুড়া। ৭। মোহাম্মদ দুলাল সোনার পিতা-মৃত ঘোষণার  সং- নাংলার চর, থানা -মাদারগঞ্জ জেলা-জামালপুর সহ আরো অন্তত ১৫/২০  অভিযোগ  করা হয়েছে।

গত ২৬/০৪/২০২০ ইং তারিখে উক্ত জমি সংক্রান্ত বিরোধকে কেন্দ্র করে সারিয়াকান্দি থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন মোঃ শাহ জালাল সরকার উক্ত জিডি নং-৮৫৫। বিরোধীরা তাদের বিরুদ্ধে জিডি করার খবর জানতে পেরে মোঃ শাহ জামালের ওপর ক্ষিপ্ত হয়ে গত ২৯/০৪/২০২০ তারিখে সময় আনুমানিক সকাল সাড়ে সাত ঘটিকায়,

তার পৈতৃক ও ক্রয় সূত্রে পুকুরের পাড়ে থাকা বেড়া-খুটি ও তার কাটার বেড়া উঠে পুকুরের মধ্যে ফেলে দেয় এবং কিছু আমগাছ তুলে ফেলেন এবং পুকুরের পাড়ে ওপর দুটি টিনের ঘর ভেঙেচুরে ফেলে।এতে প্রায়ই সর্বমোট ১৫০০০/- টাকার ক্ষতিসাধন হয়।

এবং এক বান্ডিল টিন আত্মসাতের উদ্দেশ্যে নিয়ে যায় যাহার মূল্য ৫০০/- টাকা।এছাড়াও পুকুর থেকে প্রায় ১ লাখ ২০ হাজার টাকার মাছ লুটপাট করে। উক্ত সময়ে মোঃ শাহ জামাল তাদেরকে বাধা দিতে গেলে তার ওপর মারবো কে আচরণ শুরু করে এবং প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি প্রদান করে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here